সংবাদ শিরোনামঃ
লক্ষ্মীপুর জেলায় ৮ম: বারের মতো শ্রেষ্ঠ অফিসার ইনচার্জ নির্বাচিত হলে মোঃ এমদাদুল হক দালাল বাজার ইউপি নির্বাচনে চেয়ারম্যান হিসেবে কাকে ভোট দিবেন? লক্ষ্মীপুর সদর উপজেলার দালাল বাজার ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে ৪নং ওয়ার্ডে মেম্বার পদপ্রার্থী কাজল খাঁনের গণজোয়ার লক্ষ্মীপুরের উপশহর দালাল বাজার ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদপ্রার্থী পাঁচজন,কে হবেন চেয়ারম্যান ? বাংলাদেশ আওয়ামীলীগ ওমান সুর শাখার সহ-সাধারন সম্পাদক কামাল হোসেনের ঈদের শুভেচ্ছা, ঈদ মোবারক এমপি ও মন্ত্রী হতে নয় বরং মানুষের পাশে দাঁড়াতে আ.লীগ করি, সুজিত রায় নন্দী বাড়ছে ভুয়া সাংবাদিকদের দৌরাত্ম্য, নিয়ন্ত্রণে কার্যকরী পদক্ষেপ চাই বাড়ছে ভুয়া সাংবাদিকদের দৌরাত্ম্য, নিয়ন্ত্রণে কার্যকরী পদক্ষেপ চাই লক্ষ্মীপুরে বিনা তদবিরে পুলিশে চাকরি পেল ৪৪ নারী-পুরুষ দুস্থ মানবতার সেবায় এগিয়ে আসা “সমিতি ওমান ” কর্তৃক চট্টগ্রামে ইফতার সামগ্রী বিতরণ দলিল যার, জমি তার- নিশ্চিতে আইন পাস লক্ষ্মীপুরে প্রতারণার ফাঁদ পেতেছে পবিত্র কুমার  লক্ষ্মীপুর সংরক্ষিত আসনের মহিলা সাংসদ আশ্রাফুন নেসা পারুল রায়পুরে খেজুর রস চুরির প্রতিবাদ করায় বৃদ্ধকে মারধরের অভিযোগ লক্ষ্মীপুরে আলোচিত রীয়া ধর্ষণের বিষয়ে আদালতে মামলা
আমি নিরপেক্ষ নই আইনজীবী জয়নাল আবেদীন রিগ্যান

আমি নিরপেক্ষ নই আইনজীবী জয়নাল আবেদীন রিগ্যান

ভিবি নিউজ ডেস্ক:
সেবার অনেক তর্ক হচ্ছিল, বলা হচ্ছিল আপনারা “নিরপেক্ষ” থাকুন। বাসায় ফিরে ভাবলাম “নিরপেক্ষতার” অর্থ কি? অনেক খোঁজাখুঁজি করলাম কিন্তু কোনও সরল সংজ্ঞা পাই নাই। সর্বশেষ এই সিদ্ধান্তে উপনীত হলাম যে, নিরপেক্ষতার অর্থ হচ্ছে “আপনার চারখানি হাত পা আছে, দুইখানি চোখ আছে, একখানি মুখ আছে দুটো কান আছে এবং একটি মাথা আছে কিন্তু মগজ নাই, শরীরে কোন বিশুদ্ধ রক্ত নাই” অথচ পশু এই অপেক্ষা অতি উত্তম।

রাজনীতিতে সক্রিয় হওয়ার কোনরূপ ইচ্ছা আমার ছিল না। অভিমান ভর করেছিল, একদা লেখালেখি চালিয়ে গেলাম। আমার পরিবারের যে ক্ষতি হয়েছে তা অপূরণীয়। আমাদের একেক ভাই আট-দশ বছর করে জেল খেটেছেন, পদ-পদ পাননি, ৫ লক্ষ টাকার মালিক হননি। ২০০১ সালের পর আমার মা’কে মিথ্যা মামলায় গ্রেফতারের পর ব্রেন স্ট্রোক করে তিনি মারা গিয়েছেন। সর্বশেষ হাইব্রিড দ্বারা নির্যাতনের শিকার হয়ে বাড়ি-ঘর ধূলিসাৎ হয়ে গিয়েছে। আমরা মুক্তিযুদ্ধ দেখিনি, অথচ ৯১ থেকে ৯৫ এবং ২০০১ থেকে ২০০৫ দেখেছি। সেসময় জনাব শেখ সেলিম, মোহাম্মদ নাসিম ভাই, জয়নাল হাজারীসহ অনেকে আমাদের পরিবারের পাশে দাঁড়িয়েছিলেন। কিন্তু ২০০৬-এর পর অকাল গ্রাস শুধু আমার পরিবারকে নয় লক্ষ্মীপুরের শত শত পরিবারকে ধ্বংস করে দিয়েছে। আওয়ামী লীগ আমলে আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীরা সবচেয়ে বেশি খুন হয়েছে লক্ষ্মীপুরে। হাইব্রিড-দুষ্টচক্র সর্বত্র দখল করে নিয়েছে। পদ-পদবী ব্যবহার করে হাজার কোটি টাকার মালিক বনে গিয়েছে। টাকা-পদ-ক্ষমতা একটি সংঘবদ্ধ গোষ্ঠীর কাছে জিম্মি হয়ে গেছে। এসব কারণে আমার মনো বাসনা ছিল “আই হেট পলিটিক্স”।

কিন্তু আরেকটি মুক্তিযুদ্ধ ঘটে গেলো ২০১৯ সালের ২৩শে নভেম্বর। বাংলার যুব সমাজের আলোকবর্তিকা, বাংলার অহংকার, যুব জাগরণের কাণ্ডারি শেখ ফজলুল হক মনির সুযোগ্য সন্তান মানবিক যুবলীগের স্বপ্নদ্রষ্টা শেখ ফজলে শামস পরশ যখন ঘোষণা দিলেন যারা “আই হেট পলিটিক্স” ধারণা পোষণ করেন তাদের জন্য আমি আছি। আমি অ-নিরপেক্ষতার গন্ধ খুঁজে পেলাম, সাহস পেলাম, আপোষহীন নেতার ডাক পেলাম। তারপর নবযাত্রা। আমাদের নেতা শেখ ফজলে শামস পরশ যখন ঘোষণা দেন আমি “নিষ্পেষিত-বঞ্চিত-অবহেলিত নেতাকর্মীদের জন্য”-তখন বুকটা কেঁপে উঠে। বুকটা কাঁপে তাদের জন্য যারা পদ-পদবী ব্যবহার করে হাজার কোটি টাকার মালিক হয়েছেন এবং হাজার কোটি টাকার মালিক হওয়ার স্বপ্ন দেখছেন, বুকটা কাঁপে তাদের জন্য যারা এখনো দলকে সংগঠনকে বিক্রি করে চলছেন। আর আশার বাণী-স্বপ্ন দেখি তাদের জন্য যারা আমার এবং আমার পরিবারের মতো নিষ্পেষিত-অবহেলিত এবং নির্যাতিত।

পেশায় আমি একজন আইনজীবী, যারা আমাকে খুব কাছ থেকে দেখেছেন তারা জানেন আমি কতটুক নিষ্ঠা এবং সততার সহিত জীবন যাপন করি। ১৬ ঘণ্টাই কাজ করি। বাসা এবং চেম্বার মিলে আমার পরিশ্রমের প্রাপ্য এতোটুকু যে “আমি সৎ”। কসম করে বলতে পারি সারাটা জীবনই সৎ এবং নিষ্ঠার সাথে দায়িত্ব পালন করে যাব, তাদের জন্যই দায়িত্ব পালন করে যাব যারা বঞ্চিত-অবহেলিত।

তাই আমি হলফ করে বলতে পারি “আমি নিরপেক্ষ নই”। আমাদের নেতা শেখ ফজলে শামস পরশ-এর আদর্শে দীক্ষিত হয়ে ওয়াদা করছি, “আমিও অবহেলিত-নির্যাতিত এবং বঞ্চিতদের পক্ষে”।

(সংগৃহীত)