সংবাদ শিরোনামঃ
লক্ষ্মীপুর জেলায় ৮ম: বারের মতো শ্রেষ্ঠ অফিসার ইনচার্জ নির্বাচিত হলে মোঃ এমদাদুল হক দালাল বাজার ইউপি নির্বাচনে চেয়ারম্যান হিসেবে কাকে ভোট দিবেন? লক্ষ্মীপুর সদর উপজেলার দালাল বাজার ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে ৪নং ওয়ার্ডে মেম্বার পদপ্রার্থী কাজল খাঁনের গণজোয়ার লক্ষ্মীপুরের উপশহর দালাল বাজার ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদপ্রার্থী পাঁচজন,কে হবেন চেয়ারম্যান ? বাংলাদেশ আওয়ামীলীগ ওমান সুর শাখার সহ-সাধারন সম্পাদক কামাল হোসেনের ঈদের শুভেচ্ছা, ঈদ মোবারক এমপি ও মন্ত্রী হতে নয় বরং মানুষের পাশে দাঁড়াতে আ.লীগ করি, সুজিত রায় নন্দী বাড়ছে ভুয়া সাংবাদিকদের দৌরাত্ম্য, নিয়ন্ত্রণে কার্যকরী পদক্ষেপ চাই বাড়ছে ভুয়া সাংবাদিকদের দৌরাত্ম্য, নিয়ন্ত্রণে কার্যকরী পদক্ষেপ চাই লক্ষ্মীপুরে বিনা তদবিরে পুলিশে চাকরি পেল ৪৪ নারী-পুরুষ দুস্থ মানবতার সেবায় এগিয়ে আসা “সমিতি ওমান ” কর্তৃক চট্টগ্রামে ইফতার সামগ্রী বিতরণ দলিল যার, জমি তার- নিশ্চিতে আইন পাস লক্ষ্মীপুরে প্রতারণার ফাঁদ পেতেছে পবিত্র কুমার  লক্ষ্মীপুর সংরক্ষিত আসনের মহিলা সাংসদ আশ্রাফুন নেসা পারুল রায়পুরে খেজুর রস চুরির প্রতিবাদ করায় বৃদ্ধকে মারধরের অভিযোগ লক্ষ্মীপুরে আলোচিত রীয়া ধর্ষণের বিষয়ে আদালতে মামলা
স্বামীর সাথে একই বিছানায় ১৭ দিন থেকেও স্ত্রী করোনামুক্ত

স্বামীর সাথে একই বিছানায় ১৭ দিন থেকেও স্ত্রী করোনামুক্ত

 

বিশেষ প্রতিনিধি আমতলী
করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত স্বামী হাবিবুর রহমান ভুঁইয়ার সাথে একই বিছানায় ১৭ দিন থেকেও স্ত্রী রোজিনা বেগম করোনা ভাইরাসমুক্ত। ঘটনা ঘটেছে আমতলী উজেলার কৃষ্ণনগর গ্রামে। এ ঘটনায় হতবাক আমতলী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেঙ্রে চিকিৎসক ও সেবিকারা।

জানা গেছে, উপজেলার কুকুয়া ইউনিয়নের কৃষ্ণনগর গ্রামের ইটভাটার শ্রমিক মো. হাবিবুর রহমান ভুঁইয়া গত ১৬ এপ্রিল ডায়েরিয়া রোগে আক্রান্ত হয়ে

আমতলী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেঙ্ েভর্তি হন। গত ১৮ এপ্রিল (শনিবার) হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ তার নমুনা সংগ্রহ করে ঢাকা রোগতত্ত্ব রোগ নিয়ন্ত্রণ ও গবেষণা ইনস্টিটিউটে (আইইসিডিআর) পাঠিয়ে দেন। ২১ এপ্রিল তার নমুনা প্রতিবেদন আমতলী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেঙ্ েআসে। ওই প্রতিবেদনে উল্লেখ আছে, তিনি করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন। ওই সময় থেকেই তিনি আমতলী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেঙ্রে আইসোলেশনে চিকিৎসাধীন ছিলেন। স্বামী করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হওয়ার খবরে ভেঙে পড়েন স্ত্রী রোজিনা বেগম। ধরেই নিয়েছেন, স্বামী আর বাঁচবেন না। স্বামী না বাঁচলে তার বেঁচে থেকে লাভ কি? তাই প্রতিজ্ঞা করেন, তিনি স্বামীকে সুস্থ করে দুজনেই বাড়ি ফিরবেন। নিজের জীবনের দিকে না তাকিয়ে আমতলী হাসপাতালের আইসোলেশন কক্ষেই স্বামীর পাশে এই বিছানা থেকে তার সেবা করতে থাকেন। চিকিৎসকদের বাধা থাকলেও তিনি তা মানেননি। এরপর হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ স্ত্রী রোজিনার নমুনা সংগ্রহ করে ঢাকায় পাঠান। কিন্তু প্রতিবেদনে তার করোনা ভাইরাস নেগেটিভ আসে। দ্বিতীয় এবং তৃতীয় দফায় স্বামী ও তার নমুনা প্রতিবেদন নেগেটিভ আসে। গত শনিবার দুপুরে উপজেলা স্বাস্থ্য প্রশাসক শংকর প্রসাদ অধিকারী তাকে সুস্থতার ছাড়পত্র দেন এবং হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ থেকে তাকে ফুলেল শুভেচ্ছা জানিয়ে ছেড়ে দেন। এই প্রথম আমতলী উপজেলায় করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত রোগী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেঙ্ থেকে সুস্থ্য হয়ে বাড়ি ফিরলেন। তিনি সুস্থ হয়ে বাড়ি ফেরায় এলাকার মানুষের মাঝে স্বস্তি ফিরে এসেছে। এদিকে গত ১৭ দিন স্বামীর সাথে একই বিছানায় থেকে স্ত্রী রোজিনা বেগম করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত না হওয়ায় হতবাক চিকিৎসক ও সেবিকারা। স্ত্রী রোজিনা বেগম বলেন, আল্লার উপর ভরসা রাইখ্যা মুই মোর ব্যাডার যতন হরছি। আল্লায় মোর ব্যাডারে ভালো হরছে। আর মোর কিছু অয়নাই। শুরু হয়তেই মুই ব্যাডারে ছাইর‌্যা যাইনাই। এক বিছানায় ঘুমাইছি ১৭ ডা দিন।

আমতলী উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা শংকর প্রসাদ অধিকারী বলেন, করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হাবিবুর রহমানের স্ত্রীও তার সাথে আইসোলেশনে ছিল। স্বামী-স্ত্রী একই বিছানায় থেকেও স্ত্রী করোনামুক্ত। এটা আশ্বর্যের বিষয়। তিনি আরো বলেন, হয়তো বা তার স্ত্রীর শরীরে রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বেশি তাই এমনটা হয়েছে।