সংবাদ শিরোনামঃ
রায়পুরে খেজুর রস চুরির প্রতিবাদ করায় বৃদ্ধকে মারধরের অভিযোগ লক্ষ্মীপুরে আলোচিত রীয়া ধর্ষণের বিষয়ে আদালতে মামলা তিনশ’ বছরের ঐতিহাসিক ‘খোয়াসাগর দিঘি’র নাম পরিবর্তনের কোন সুযোগ নেই, জেলা প্রশাসক’ বাংলাদেশ আওয়ামীলীগের যুব ও ক্রিড়া বিষয়ক উপকমিটির তৃতীয় বার সদস্য হলেন লক্ষ্মীপুরের কৃতি সন্তান আবুল বাশার লক্ষ্মীপুরের রামগঞ্জ প্রেসক্লাবের নির্বাচন সম্পন্ন সভাপতি-তাহের,সম্পাদক কাউছার লক্ষ্মীপুরে মেয়ের পেটে বাবার সন্তান, প্রসব করে বাসর ঘরে লক্ষ্মীপুরের কৃতিসন্তান রোটারিয়ান ইঞ্জি: মোহা: মোহাব্বত উল্যাহ পরপারে ওমানে বাংলাদেশ আওয়ামীলীগের ২০২৪-২৫ ইং সনের কার্যকরি কমিটি গঠন সভাপতি-ছৈয়দ হোসেন তালুকদার, সম্পাদক-জসিম উদ্দিন হায়দার, সহসাধারণ সম্পাদক মোঃ কামাল হোসেন নির্বাচিত লক্ষ্মীপুর সদর হাসপাতালের নির্মান কাজ ৬ বছরেও হয়নি শেষ,মারাত্মক ভোগান্তির শিকার সেবাপ্রার্থীরা মিজানুর রহমান মুকুল রামগঞ্জ প্রেসক্লাবের নির্বাচনে সভাপতি পদপ্রার্থী লক্ষ্মীপুরের উপশহর দালাল বাজারে একটি গণশৌচাগার আবশ্যক, জেলা প্রশাসকের দৃষ্টি আকর্ষণ লক্ষ্মীপুর সদরে স্বাধীনতা স্পোর্টিং ক্লাবের সভাপতি মোবারক সম্পাদক মাহফুজ, যুগ্ম সম্পাদক ফয়সাল কবির প্রিন্সিপাল কাজী ফারুকী স্কুল এন্ড কলেজের ১ যুগপূর্তি অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ভিসি ড, এ এস এম মাকসুদ কামাল রায়পুরে ৬৫ বছরের বৃদ্ধ কৃষককে পিটিয়ে খালে ফেলে দিলেন ইউপি সদস্য আরিফুর রহমান ডিজিটাল যুগে এসে হারিয়ে গেলো কুপি(চেরাগ)
লক্ষ্মীপুরে প্রেমকে কেন্দ্র করে কলেজ ছাত্র কে পিটিয়ে হত্যা

লক্ষ্মীপুরে প্রেমকে কেন্দ্র করে কলেজ ছাত্র কে পিটিয়ে হত্যা

ভিবি নিউজ ডেস্কঃ

লক্ষ্মীপুরে প্রেম কে কেন্দ্র করে কলেজ ছাত্র মো. জাবেদ হোসেন (২০) কে ফোনে ডেকে নিয়ে পিটিয়ে হত্যার অভিযোগ উঠেছে।

ঘটনাটি ধামাচাপা দিতে নিহতের লাশ ফ্যানের সাথে ঝুলিয়ে আত্মহত্যার নাটক সাজানো হয়েছে বলে দাবী নিহতের স্বজনদের।


বৃহস্পতিবার ২৪ সেপ্টেম্বর দুপুরে সদর উপজেলার বিজয়নগর গ্রামে প্রেমিকার নানার বাড়ি ইন্দ্র পন্ডিত বাড়ি থেকে ঝুলন্ত অবস্থায় ওই ছাত্রের লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য লক্ষ্মীপুর সদর হাসপাতালের মর্গে পাঠায় পুলিশ।

নিহত কলেজ ছাত্র জাবেদ একই ইউনিয়নের হাসন্দী গ্রামের শরীফ উল্যার ছেলে। সে লক্ষ্মীপুর সদর উপজেলার  দালাল বাজার ডিগ্রী কলেজের একাদশ শ্রেণীর ছাত্র।

নিহতের স্বজন ও প্রত্যক্ষদর্শীরা জানায়, সদর উপজেলার উত্তর হামছাদী ইউনিয়নের পূর্ব হাসন্দি গ্রামের মো. সেলিমের মেয়ের সাথে

একই ইউনিয়নের হাসন্দি গ্রামের কলেজ ছাত্র জাবেদের দুই বছর ধরে প্রেমের সম্পর্ক চলে আসছে। বিষয়টি পারিবারিক ভাবে জানাজানি হওয়ায় ক্ষিপ্ত হয় মেয়ের পরিবারের লোকজন। এক পর্যায়ে দুজনই সিদ্ধান্ত নেয় পালিয়ে বিয়ের করার। ঘটনার দিন সকালে বিষয়টি টের পেয়ে মেয়ের ভাই ফরহাদ, রুবেল লিটনসহ কয়েকজন কৌশলে ফোনে জাবেদকে প্রেমিকার নানার বাড়িতে ডেকে নিয়ে যায় এবং পরবর্তীতে প্লেন ওয়াইজ পিটিয়ে হত্যা করে। এক পর্যায়ে ঘটনাটি ধামাচাপা দিতে লাশটি ঘরের ফ্যানের সাথে ঝুলিয়ে রাখা হয়। পরে দুপুরে খবর পেয়ে ঘটনাস্থল থেকে পুলিশ  মরদেহ উদ্ধার করে ।

এঘটনায় নিহত কলেজ ছাত্রের বাবা শরীফ উল্যা জানান, প্রেম সংক্রান্ত ঘটনাকে কেন্দ্র করে তার ছেলেকে ডেকে নিয়ে পিটিয়ে হত্যার পর লাশ ঝুলিয়ে আত্মহত্যার নাটক সাজানো হয়েছে। এ হত্যাকান্ডের সুষ্ঠ বিচার দাবী করেন তিনি।

এদিকে পিটিয়ে হত্যার বিষয় অস্বীকার করে মেয়েটির খালা জানান, পালিয়ে যাওয়ার জন্য দু’জন বিজয় নগর মেয়ের নানার বাড়িতে একত্রিত হয়। কিন্তু মেয়ে পালাতে রাজি না হওয়ায় ক্ষোভের বসত ঘরের দরজা লাগিয়ে ওড়না দিয়ে আত্মহত্যা করে কলেজ ছাত্র জাবেদ। ঘটনার সাথে তারা কেউই জড়িত নয় বলে দাবী করেন তিনি।

এ ব্যাপারে লক্ষ্মীপর সদর থানার ওসি তদন্ত মোসলেহ উদ্দিন বলেন, খবর পেয়ে ঘরের দরজা ভেঙ্গে ঝুলন্ত অবস্থায় কলেজ ছাত্রের মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে। লাশটির শরীরে কোন আঘাত চিহ্ন পাওয়া যায়নি। তবে হত্যা না আত্মহত্যা বিষয়টি সঠিক ভাবে বলা যাচ্ছে না। ময়নাতদন্তের প্রতিবেদন হাতে পেলে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে বলে জানান তিনি।