সংবাদ শিরোনামঃ
রায়পুরে খেজুর রস চুরির প্রতিবাদ করায় বৃদ্ধকে মারধরের অভিযোগ লক্ষ্মীপুরে আলোচিত রীয়া ধর্ষণের বিষয়ে আদালতে মামলা তিনশ’ বছরের ঐতিহাসিক ‘খোয়াসাগর দিঘি’র নাম পরিবর্তনের কোন সুযোগ নেই, জেলা প্রশাসক’ বাংলাদেশ আওয়ামীলীগের যুব ও ক্রিড়া বিষয়ক উপকমিটির তৃতীয় বার সদস্য হলেন লক্ষ্মীপুরের কৃতি সন্তান আবুল বাশার লক্ষ্মীপুরের রামগঞ্জ প্রেসক্লাবের নির্বাচন সম্পন্ন সভাপতি-তাহের,সম্পাদক কাউছার লক্ষ্মীপুরে মেয়ের পেটে বাবার সন্তান, প্রসব করে বাসর ঘরে লক্ষ্মীপুরের কৃতিসন্তান রোটারিয়ান ইঞ্জি: মোহা: মোহাব্বত উল্যাহ পরপারে ওমানে বাংলাদেশ আওয়ামীলীগের ২০২৪-২৫ ইং সনের কার্যকরি কমিটি গঠন সভাপতি-ছৈয়দ হোসেন তালুকদার, সম্পাদক-জসিম উদ্দিন হায়দার, সহসাধারণ সম্পাদক মোঃ কামাল হোসেন নির্বাচিত লক্ষ্মীপুর সদর হাসপাতালের নির্মান কাজ ৬ বছরেও হয়নি শেষ,মারাত্মক ভোগান্তির শিকার সেবাপ্রার্থীরা মিজানুর রহমান মুকুল রামগঞ্জ প্রেসক্লাবের নির্বাচনে সভাপতি পদপ্রার্থী লক্ষ্মীপুরের উপশহর দালাল বাজারে একটি গণশৌচাগার আবশ্যক, জেলা প্রশাসকের দৃষ্টি আকর্ষণ লক্ষ্মীপুর সদরে স্বাধীনতা স্পোর্টিং ক্লাবের সভাপতি মোবারক সম্পাদক মাহফুজ, যুগ্ম সম্পাদক ফয়সাল কবির প্রিন্সিপাল কাজী ফারুকী স্কুল এন্ড কলেজের ১ যুগপূর্তি অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ভিসি ড, এ এস এম মাকসুদ কামাল রায়পুরে ৬৫ বছরের বৃদ্ধ কৃষককে পিটিয়ে খালে ফেলে দিলেন ইউপি সদস্য আরিফুর রহমান ডিজিটাল যুগে এসে হারিয়ে গেলো কুপি(চেরাগ)
লক্ষ্মীপুরে এক স্ত্রীর দুই স্বামী শহরজুড়ে সমালোচনার ঝড়

লক্ষ্মীপুরে এক স্ত্রীর দুই স্বামী শহরজুড়ে সমালোচনার ঝড়

বিশেষ প্রতিনিধি : আমজাদ হোসেন । লক্ষ্মীপুরে গৃহবধূ বিউটি আক্তার তার প্রবাসী স্বামী নজির আহমেদকে আদালতের মাধ্যমে তালাক দিয়েছে । কিন্তু, তালাক দেওয়ার পর বিউটি ৪ মাস নজিরের সঙ্গেই ছিল ।

এরপর নজির বিদেশ পাড়ি দিলেই বিউটি প্রতিবেশি ভাগিনা ফরিদ হোসেনকে বিয়ে করে । কিন্তু প্রবাসীর ঘরে থেকেই ফরিদের সঙ্গে বিউটি সম্পর্ক রাখে । নজিরকে তালাক ও ফরিদকে বিয়ে করার বিষয়টি গোপন রেখে গত দুই বছরে প্রতারণা করে নজিরের অন্তত ১৫ লাখ টাকা বিউটি তার বর্তমান স্বামীকে দিয়েছে ।

নজির লক্ষ্মীপুর পৌরসভার ১৫নং ওয়ার্ড করইতলা এলাকার মৃত নুরুল হকের ছেলে ও সৌদি প্রবাসী । অভিযুক্ত বিউটি সদর উপজেলার ৪নং চররুহিতা ইউনিয়নের রসুলগঞ্জ গ্রামের ইব্রাহিমের মেয়ে আর ফরিদ হলো নজির এর ভাগিনা ও একই বাড়ির মৃত মমিন উল্যাহর ছেলে ।

সংশ্লিষ্ট সূত্র জানায়, ২০১৮ সালের ৩০ জুলাই লক্ষ্মীপুর আদালতে নোটারী পাবলিকের মাধ্যমে বিউটি তার প্রবাসী স্বামী নজিরকে তালাক দেয় । ওই সময় নজির বাড়িতেই ছিল কিন্তু, তার কাছ থেকে তালাকের বিষয়টি গোপন রাখা হয় । একই বছর নভেম্বরের শুরুতে নজির কাজের সন্ধানে সৌদি আরবে চলে যান । এরপর ২০ নভেম্বর লক্ষ্মীপুর আদালতে নোটারী পাবলিকের মাধ্যমে বিউটি ১০ লাখ টাকা দেনমোহরে ফরিদকে বিয়ে করেন । বিয়ের ঘটনাটিও বিউটি প্রবাসী নজিরের কাছ থেকে গোপন রাখে । নজিরের বাবা,এবং, মা দুইজনই মৃত । এ সুযোগে ফরিদের সঙ্গে বিয়ের পরও নজিরের বসতঘরে থেকেই বিউটি প্রতারণা করে আসছে । নজিরের দেওয়া স্বর্ণালংকারসহ অন্তত ১৫ লাখ টাকা স্বামী ফরিদসহ বিউটি হাতিয়ে নিয়েছে বলে অভিযোগ উঠেছে প্রবাসি নজির আহমেদ থেকে।

এ ব্যাপারে বিউটি আক্তার বলেন, ফরিদ ও তার বোন রোকেয়া আমার সঙ্গে প্রতারণা করেছে । আমাকে অন্য কথা বলে তালাক ও কাবিননামায় স্বাক্ষর নিয়েছে । আমি তাকে স্ব-ইচ্ছায় বিয়ে করিনি । বিভিন্ন সময় আমাকে প্রতারনার ফাঁদে ফেলে নজিরের দেওয়া টাকা ও স্বর্ণালংকার ফরিদ হাতিয়ে নিয়েছে । নজিরের ভাতিজা জাবেদ হোসেন জানান, তালাক ও বিয়ে বিষয়টি গোপন রেখে আমার চাচা নজিরের সঙ্গে বিউটি প্রতারণা করেছে । এ ঘটনায় আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়ার জন্য প্রশাসনের সুদৃষ্টি কামনা করছি । ফরিদের মা নুরজাহান বেগম জানান, আমার ছেলে বিউটিকে বিয়ে করেছে, তা আমি আগে জানতাম না । আমার ছেলের বিয়ের জন্য মেয়ে দেখতে গেলে বিউটি আমাদেরকে ঘটনাটি জানায় । তবে আমার ছেলে বিউটির কাছ থেকে কোন টাকা নেয়নি ।

সুপ্রিম কোর্টের আইনজীবী কাউসার হাসান বলেন, তালাক দেওয়ার পরও বিউটি ৪ মাস নজিরের সঙ্গে বসবাস করেছেন । ফরিদকে বিয়ের ঘটনা না জানিয়ে বিউটি নজিরের সঙ্গে প্রতারণা করেছে । এটি আইনত দন্ডনীয় অপরাধ ।

লক্ষ্মীপুর পৌরসভার ১৫নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর আনোয়ার হোসেন শাহী বলেন, ফরিদের সঙ্গে বিউটির বিয়ের ঘটনাটি আগে জানতাম না । এক নারী অবৈধভাবে দুই স্বামীর সংসার করছে, এটি ন্যাক্কারজনক । ব্যক্তিগতভাবে ফরিদও খারাপ ছেলে । ফরিদ সম্প্রতি আমাদের এক মহিলা কাউন্সিলরকে মারধর করেছে । তার শাস্তি হওয়া প্রয়োজন ।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে লক্ষ্মীপুর অতিরিক্ত জেলা পুলিশ সুপার রিয়াজুল কবির বলেন, ঘটনাটি শুনেছি । সামাজিক শৃঙ্খলা বজায় রাখতে ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠানো হয়েছে । লিখিত অভিযোগ পেলে আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হবে ।